প্রকাশিত:
০৯ জুলাই, ২০১৯ ১১:২৪ পিএম


বিয়ের দাবিতে বাড়িতে প্রেমিকা, পালিয়ে গেছেন প্রেমিক


বিয়ের দাবিতে বাড়িতে প্রেমিকা, পালিয়ে গেছেন প্রেমিক

সাতক্ষীরায় বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে ধরনায় বসেছেন এক তরুণী।

মঙ্গলবার সকাল থেকে প্রেমিক আবু সাঈদের বাড়িতে অবস্থান নেন তিনি; তার আগেই পালিয়ে গেছেন সাঈদ।

সাতক্ষীরা সদর উপজেলার আগরদাঁড়ি ইউনিয়নের বাঁশঘাটা গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

অবস্থান নেওয়ার পর সাঈদের বাড়ির লোকজন তাকে মারধর করে তার মোবাইল ভেঙ্গে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন ওই তরুণী।  

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য আমিনা খাতুন বলেন, ওই তরুণী ও বাঁশঘাটা গ্রামের রেজাউল বকসের ছেলে আবু সাঈদের মধ্যে টানা ছয় বছর ধরে প্রেম চলছিল। তাকে বিয়ে করবে বলে সাঈদ তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কও করে বলে দাবি মেয়েটির। মেয়ের বাবা তাকে অন্য কোথাও বিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করলে সাঈদ তা ভেঙ্গে দিতো।

স্থানীয়রা জানান, চারদিন আগে ওই নারী আবু সাঈদকে বিয়ের জন্য চাপ দিতে তার বাড়িতে যান। বাড়ির লোকজন কৌশলে তাকে বাড়ি সংলগ্ন রাস্তায় ঠেলে পাঠালে সেখানেই অবস্থান নেন তিনি।

ওইদিন সকাল ৯ টা থেকে দুপুর আড়াইটা পর্যন্ত এমন অবস্থায় থাকার পর তাকে বাড়িতে পাঠানো হয়। মেয়েটি এ সময় বারবার বলেন, ‘সাঈদ আমাকে  বিয়ে করে স্ত্রীর মর্যাদা না দিলে আমি ভিন্ন পথ অবলম্বন করবো’।

ওই তরুণী জানান, তিনি এইচএসসি পাস করার পর ঢাকায় একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করতেন। এর আগে গ্রামের ইটভাটার ম্যানেজার আবু সাঈদ তাকে চলার পথে বারবার উত্ত্যক্ত করতেন। এক পর্যায়ে তার সাথে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন তিনি। এই সুযোগে সাঈদ তাকে বিয়ের আশ্বাসে শারীরিক সম্পর্ক করেন্

তিনি বলেন, ‘সাঈদ আমাকে বিয়ে করবে কথা দেয়। এ বিষয়ে জানবার জন্য ক’দিন আগে তার বাড়িতে যান যাই। খবর পেয়ে সাঈদ পালিয়ে যান।'

ওই নারী অভিযোগ করে বলেন, আবু সাঈদের বাবা টাকা দিয়ে মিটমাট করতে চায়। আমি বলেছি টাকা দিয়ে প্রেম ভালাবাসা বেচাকেনা করা যায় না। মঙ্গলবার সকাল থেকে তিনি ফের ধরনায় বসেছেন আবু সাঈদের বাড়িতে।


আপনার মতামত লিখুন :
আরো পড়ুন
শাহজালাল বিমানবন্দরে লাগেজ কাটার সময় ধরা খেল ৪ কর্মী

শাহজালাল বিমানবন্দরে লাগেজ কাটার সময় ধরা খেল ৪ কর্মী

অ্যারাবিয়ার একটি বিমান থেকে লাগেজ কেটে মালামাল চুরির সময় চারজনকে…

শিশুদের প্রতি যৌন নির্যাতনের সাজা মৃত্যুদণ্ড করতে যাচ্ছে ভারত

শিশুদের প্রতি যৌন নির্যাতনের সাজা মৃত্যুদণ্ড করতে যাচ্ছে ভারত

শিশুদের প্রতি যৌন নির্যাতন রুখতে কড়া পদক্ষেপ নিয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয়…

সেনা কবরস্থানে এরশাদের দাফন আগামীকাল

সেনা কবরস্থানে এরশাদের দাফন আগামীকাল

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা হুসেইন মুহম্মদের জানাজা…

আগের তুলনায় সীমান্তে হত্যা অনেকটা কমেছে
আগের তুলনায় সীমান্তে হত্যা অনেকটা কমেছে

আগের তুলনায় সীমান্তে হত্যা অনেকটা কমেছে

আগের তুলনায় সীমান্তে হত্যা অনেকটা কমে এসেছে বলে দাবি করেছেন…

ধর্ষণ রুখতে কঠোর আইন প্রণয়নের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

ধর্ষণ রুখতে কঠোর আইন প্রণয়নের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

ধর্ষণের বিরুদ্ধে কঠোর আইন প্রণয়ন করে অপরাধীদের কঠোর শাস্তি প্রদানের…

টিকটক ভিডিও বানানোর জন্য সুরমা নদীতে ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ কিশোর, ৪৮ ঘন্টা পর মিলল লাশ

টিকটক ভিডিও বানানোর জন্য সুরমা নদীতে ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ কিশোর, ৪৮ ঘন্টা পর মিলল লাশ

সাম্প্রতিক সময়ে ভাইরাল হওয়া জনপ্রিয় গান ‘তরে ভুলে যাওয়ার লাগি…

সিলেট দিন দুপুরে ছিনতাই গোলাপগঞ্জে টাকাসহ আটক ৩

সিলেট দিন দুপুরে ছিনতাই গোলাপগঞ্জে টাকাসহ আটক ৩

সিলেটের শাহপরাণ থেকে টাকা ছিনতাই করে পালিয়ে যাওয়ার সময় ধাওয়া…

‘পদ্মা সেতুর জন্য মাথা লাগবে’ গুজবে আটক ১

‘পদ্মা সেতুর জন্য মাথা লাগবে’ গুজবে আটক ১

ছেলে ধরা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে স্ট্যাটাস ও ম্যাসেঞ্জারের…