প্রকাশিত:
০৮ মার্চ, ২০১৯ ০৯:২৫ পিএম


রমজানে পণ্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে সরকারের আগাম প্রস্তুতি


রমজানে পণ্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে সরকারের আগাম প্রস্তুতি

>> মে মাসের প্রথম সপ্তাহে শুরু হবে রমজান মাস 
>> বাজার তদারকি করবে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ও
>> চলতি মাসেই ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বসছেন বাণিজ্যমন্ত্রী
>> ছয়পণ্য আমদানি বাড়ানোর উদ্যোগ নেয়া হয়েছে

চাহিদার তুলনায় নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য অনেক বেশি মজুদ থাকায় রমজান মাসে পণ্যের দাম স্বাভাবিক থাকবে- এমন কথা কয়েক বছর ধরে বলে আসছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পণ্যের মূল্য স্বাভাবিক থাকে না। অধিক মূল্য দিয়েই ক্রেতাদের পণ্য কিনতে নাভিশ্বাস ওঠে। তাই এবার একটু আগেভাগেই প্রস্তুতি গ্রহণ করতে শুরু করেছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।

এরই অংশ হিসেবে রমজান মাস সামনে রেখে ছয়পণ্য আমদানি বাড়ানোর উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। রোজায় সবচেয়ে বেশি ব্যবহার হয় এমন ছয়টি পণ্য হচ্ছে- ভোজ্যতেল, চিনি, ডাল, ছোলা, পেঁয়াজ ও খেজুর। রমজানে যাতে এ ধরনের পণ্যসামগ্রীর কোনো সঙ্কট তৈরি না হয় সে লক্ষ্যে ব্যবসায়ীদের আমদানি বাড়ানোর পরামর্শ দেয়া হয়েছে। একই সঙ্গে দ্রব্যমূল্য স্বাভাবিক রাখতে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের পাশাপাশি নিয়মিত বাজার তদারকি করবে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ও।

কারসাজি করে দাম বাড়ানোর কৌশল নেয়া হলে অপরাধী ব্যবসায়ীকে এবার পেতে হবে কঠোর শাস্তি। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মফিজুল ইসলাম জাগো নিউজকে বলেন, ‘রমজান উপলক্ষে অন্যান্য বারের মতো এবারও আমাদের মজুদ পরিস্থিতি খুব ভালো। রমজানে যেসব পণ্যের চাহিদা বেশি থাকে সেগুলোর মজুদ আরও বাড়ানো হচ্ছে। ওই সময়ের চাহিদা বিবেচনায় নিয়ে আমদানি বাড়ানোসহ যা করণীয় সরকারের পক্ষ থেকে সব করা হবে। এছাড়া এবার সরকার নিয়ন্ত্রিত সংস্থা টিসিবির কার্যক্রম আরও বাড়ানোর পদক্ষেপ নেয়া হবে।’

মে মাসের প্রথম সপ্তাহে এবার রোজা শুরু হবে। সে হিসাবে আর দু’মাস পর আসছে মাহে রমজান। রমজানে পণ্যমূল্য নিয়ন্ত্রণে রাখায় করণীয় ঠিক করতে এ মাসেই ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

সম্প্রতি বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের সরবরাহ, বিপণন ও মূল্য পরিস্থিতি নিয়ে একটি প্রতিবেদন তৈরি করা হয়েছে। ওই প্রতিবেদনে ভোক্তাদের জন্য এ সুখবর দিয়ে আরও বলা হয়, রমজানের চাহিদাকে পুঁজি করে কেউ যাতে অস্বাভাবিকভাবে পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি করতে না পারে সে লক্ষ্যে বাজারের দিকে গোয়েন্দা সংস্থার তীক্ষ্ণ নজরদারি থাকবে। ওই প্রতিবেদনে বিভিন্ন পণ্যের চাহিদা ও জোগান বিষয়ে বিস্তারিত উল্লেখ করা হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :
অর্থনীতি এর আরও খবর

আরো পড়ুন
ফ্রান্সে বাংলাদেশী শরণার্থী ফাহিম বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরণার্থী রহিমা!!

ফ্রান্সে বাংলাদেশী শরণার্থী ফাহিম বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরণার্থী রহিমা!!

২০০৮ সালে বাংলাদেশ থেকে ফাহিম মুহাম্মদ সে তার বাবা-মার সাথে…

মৌলভীবাজার উলামা পরিষদের প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল
কাশ্মীরে ভারতীয় আগ্রাসনের প্রতিবাদ

মৌলভীবাজার উলামা পরিষদের প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল

কাশ্মীরে ভারতীয় আগ্রাসনের প্রতিবাদে মৌলভীবাজার উলামা পরিষদের উদ্যোগে মৌলভীবাজার শহরে…

বাহুবল উপজেলা চেয়াম্যানের প্রচেষ্টায় আঞ্চলিক রাস্তার ভাড়া নিয়ে বিরোধ নিস্পত্তি

বাহুবল উপজেলা চেয়াম্যানের প্রচেষ্টায় আঞ্চলিক রাস্তার ভাড়া নিয়ে বিরোধ নিস্পত্তি

হবিগঞ্জ জেলার বাহুবল উপজেলার বাহুবল-অলুয়া আঞ্চলিক রাস্তার ভাড়া বিরোধ কে…

ছাতকের হায়দরপুর কিশোরের হাতে যুবক খুন, আটক ২

ছাতকের হায়দরপুর কিশোরের হাতে যুবক খুন, আটক ২

সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলা ভাতগাওঁ ইউনিয়নের হায়দরপুর গ্রামে পূর্ব শত্রুতার জেরে…

শাহ আব্দুল করিমের গান বিকৃত করে গাইলেও কষ্ট হতো না বাউল সম্রাটের!!

শাহ আব্দুল করিমের গান বিকৃত করে গাইলেও কষ্ট হতো না বাউল সম্রাটের!!

প্রখ্যাত শিল্পী কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্য একবার বাউল শাহ আবদুল করিমকে জিজ্ঞাসা…

কাজের লোককে প্রহার : ফ্রান্সে সৌদি রাজকন্যার কারাদণ্ড

কাজের লোককে প্রহার : ফ্রান্সে সৌদি রাজকন্যার কারাদণ্ড

সৌদি আরবের বর্তমান যুবরাজ মুহাম্মদ বিন সালমানের এক সৎবোনকে কারাদণ্ড…

দিরাই বসন বিপনী দোকানে চুরির ঘটনার মালামাল উদ্ধার,গডফাদার গ্রেফতার

দিরাই বসন বিপনী দোকানে চুরির ঘটনার মালামাল উদ্ধার,গডফাদার গ্রেফতার

গত ০৯ আগস্ট  দিবাগত রাতে সুনামগঞ্জ জেলার দিরাই বাজারস্থ বসন…

ময়মনসিংহে হাত-পা বেঁধে গৃহবধূকে গণধর্ষণ

ময়মনসিংহে হাত-পা বেঁধে গৃহবধূকে গণধর্ষণ

ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলায় এক গৃহবধূকে সিএনজিচালিত অটোরিকশায় উঠিয়ে দেওয়ার কথা…